২ শামুয়েল ২৪:৯ – ৫ নাকি ৪.৭ লক্ষ সৈন্য ?

২ শামুয়েল ২৪:৯—(দ্বিতীয় প্রশ্ন) “এখানে বলা হয়েছে এহুদার ৫ লক্ষ সৈন্য ছিল, কিন্তু ১ খান্দাননামা ২১:৫ আয়াতে ৪.৭ লক্ষ সৈন্য ছিল।”

১ খান্দাননামা ২১:৬ আয়াতে পরিষ্কার ভাবে বলা হয়েছে যে যোয়াব তার গণনা শেষ করতে পারেনি কারণ তিনি বিনয়ামীন এবং লেবীয় গোষ্ঠী গণনা করেননি। তাই কিছু কিছু সংখ্যাতে বিভিন্ন দল বা ঘোষ্ঠী বাদ দেওয়া হল অথবা যোগ দেওয়া হল। অন্য একটি আয়াতে (১ খান্দাননামা ২৭:২৩-২৪) বলা হয়েছে যে দাউদ বিশ বছরের কম বয়সে কোন ছেলের হিসাব করেননি, এবং যে যোয়াবের গণনা অসমাপ্ত বলে বাদশাহ্‌ দাউদের ইতিহাস বইয়ে কোন সংখ্যা দেওয়া হয়নি।

কোরআনের সূরা নিসা ৪:১১-২ এবং ১৭৬ আয়াতের উত্তরাধিকার নিয়মের মধ্যে একই রকমের সংখ্যার জটিলতা পাওয়া যায়। যখন একজন মানুষ মারা গিয়ে তিনটি মেয়ে, তার বাবা-মা এবং স্ত্রী রেখে যায়, সম্পত্তির ২/৩ ভাগ পাবে তাঁর মেয়েরা, ১/৩ ভাগ পাবে তাঁর বাবা-মা (১১ আয়াত অনুযায়ী), এবং ১/৮ ভাগ পাবে তাঁর স্ত্রী (১২ আয়াত অনুযায়ী); যোগ করলে সেই ব্যক্তির সম্পত্তির বেশী হয়ে যায়। দ্বিতীয় উদাহরণ— একজন তার মা, স্ত্রী এবং দুই বোন রেখে মারা গেলে, তাঁর মা পাবে সম্পত্তির ১/৩ ভাগ (১১ আয়াত), স্ত্রী পাবে ১/৪ ভাগ (১২ আয়াত), এবং দুই বোন পাবে ২/৩ ভাগ (১৭৬ আয়াত), আবার সেটা হয় সম্পত্তির ১৫/১২ ভাগ। মূল কথা, কিতাবুল মোকাদ্দস এবং কোরআন উভয় গ্রন্থে আপাত দৃষ্টিতে এই রকম সাংখ্যিক জটিলতা আছে, কিন্তু একটু গভীরে গেলে অনেক ক্ষেত্রে সমাধান পাওয়া যায়।

কোনো প্রশ্ন বা মন্তব্য থাকলে আমরা শুনতে চাই! নিচের ফর্ম দিয়ে যোগাযোগ করুন:

Enable javascript in your browser if this form does not load.

Leave a Reply

Your email address will not be published.